English ছবি ভিডিও
Bangla Font Problem?
শেষ আপডেট ৪:৫৫ পূর্বাহ্ণ
ঢাকা, বৃহস্পতিবার , ১৯শে ফেব্রুয়ারি, ২০২০ ইং , ৮ই ফাল্গুন, ১৪২৬ বঙ্গাব্দ

আম আদমি বিধায়কের বিজয় মিছিলে গুলি, নিহত ১

Facebooktwittergoogle_plusredditpinterestlinkedinmail

Last updated on ফেব্রুয়ারি ১৮, ২০২০ at ০৯:১৯ পূর্বাহ্ণ

দিল্লির বিধানসভা নির্বাচনে বিজয় উদ্‌যাপনের সময় আম আদমি পার্টির (এএপি) বিধায়কের খোলা গাড়ি লক্ষ্য করে গুলি ছোড়া হয়েছে। এতে দলের এক কর্মী নিহত হয়েছেন। গতকাল মঙ্গলবার রাতে দক্ষিণ দিল্লির কিষানগড় গ্রামে এ হামলার ঘটনা ঘটে।

এএপির মেহরাউলির বিধায়ক নরেশ যাদব বিধানসভা নির্বাচনে জয়লাভের পর কর্মী–সমর্থকদের নিয়ে মন্দির থেকে ফেরার পথে তাঁর গাড়ি লক্ষ্য করে গুলি ছোড়া হয়। গুলিতে আরেক কর্মী আহত হয়েছেন। তবে বিধায়ক নরেশ যাদব অক্ষত রয়েছেন। গতকাল বুধবার এনডিটিভির অনলাইন সংস্করণে বলা হয়, নিহত কর্মীর নাম অশোক মান। গুলি ছোড়ার আগের ছবিতে দেখা গেছে, তিনি নরেশ যাদবের পাশে দাঁড়িয়ে আছেন এবং জয়সূচক ভি চিহ্ন দেখিয়ে ক্যামেরার দিকে হাসিমুখে তাকিয়ে রয়েছেন। গুলি ছোড়ার ঘটনায় তিন ব্যক্তির জড়িত থাকার অভিযোগ উঠেছে। এর মধ্যে একজনকে আটক করেছে পুলিশ।

পুলিশ জানায়, গুলি ছোড়ার সঙ্গে জড়িত থাকার কথা স্বীকার করে আটক ব্যক্তি বলেন, হত্যার উদ্দেশে অশোক মান ও তাঁর ভাতিজা হারেন্দেরকে লক্ষ্য করে গুলি ছোড়া হয়। বিধায়ক নরেশ যাদব তাঁদের লক্ষ্যবস্তু ছিলেন না।

এএপির অফিশিয়াল টুইটার পেজে বলা হয়েছে, ‘মন্দির থেকে ফেরার পথে এএপির বিধায়ক নরেশ যাদব এবং তাঁর সঙ্গে থাকা স্বেচ্ছাসেবকদের লক্ষ্য করে গুলি ছোড়া হয়। গুলির আঘাতে একজন স্বেচ্ছাসেবক নিহত হয়েছেন। আরেকজন আহত হয়েছেন।’ এতে বলা হয়, ‘এএপি বিধায়ক নরেশ যাদবের ওপর হামলার ঘটনায় স্বেচ্ছাসেবক অশোক মান নিহত হয়েছেন। আমরা আজ আমাদের পরিবারের একজনকে হারালাম। তাঁর আত্মা শান্তিতে থাকুক।’

ঘটনার বর্ণনা তুলে ধরে প্রতিবেদনে বলা হয়েছে, গতকাল রাত সাড়ে ১০টার দিকে দক্ষিণ দিল্লির কিষানগড় গ্রামে ছিলেন নরেশ যাদব। মন্দির থেকে বের হওয়ার পর তিনি তাঁর সমর্থকদের নিয়ে খোলা গাড়িতে যখন দাঁড়িয়ে ছিলেন, তখন অজ্ঞাতনামা ব্যক্তিরা গাড়িটিকে লক্ষ্যে করে গুলি ছোড়ে। নরেশ যাদব বলেন, জয় উদ্‌যাপনের জন্য সেখানে তখন আতশবাজি চলছিল। তাঁর গাড়িটি ওই জায়গা অতিক্রম করার সময় গুলি চালানো হয়। গুলির শব্দকে শুরুতে তিনি আতশবাজির শব্দ ভেবেছিলেন। যখন তিনি বুঝতে পারেন গাড়ি লক্ষ্য করে গুলি করা হয়েছে, তখন তিনি তড়িঘড়ি করে অন্য গাড়িতে ঢুকে পড়েন।

বার্তা সংস্থা এএনআইকে দেওয়া সাক্ষাৎকারে নরেশ যাদব আততায়ীদের শনাক্ত করতে পুলিশের পূর্ণ তদন্তের দাবি জানিয়েছেন। তিনি বলেন, ‘এটা সত্যিই দুর্ভাগ্যজনক ঘটনা। আমি জানি না এই হামলার পেছনের কারণ কী। সবকিছু এত দ্রুত ঘটল। চারটির মতো গুলি বর্ষণ হয়েছে। যে গাড়িতে আমি ছিলাম, তাতে হামলা হয়। যদি পুলিশ সঠিক তদন্ত করে, আমি নিশ্চিত, তারা হত্যাকারীকে খুঁজে বের করতে পারবে।’

অরবিন্দ কেজরিওয়ালের এএপি তৃতীয়বারের মতো দিল্লির ক্ষমতায় এল। ৮ ফেব্রুয়ারি অনুষ্ঠিত নির্বাচনের ফল ঘোষণা করা হয় গতকাল। দলটি ৬২টি আসনে জিতেছে। আর বিজেপি জিতেছে ৮টি আসনে। নরেশ যাদব মেহরাউলি আসনে বিজেপির কুসুম খাত্রিকে ১৮ হাজার ১৬১ ভোটের ব্যবধানে পরাজিত করেছেন।

সাম্প্রতিক কিছু ঘটনায় ভারতের রাজধানী দিল্লির আইনশৃঙ্খলা পরিস্থিতি নিয়ে এখন উত্তপ্ত আলোচনা চলছে। গত মাসে নাগরিকত্ব সংশোধনী আইনবিরোধী বিক্ষোভে গুলিবর্ষণের ঘটনা ঘটে। এএপি ওই ঘটনায় স্বরাষ্ট্রমন্ত্রী অমিত শাহকে আক্রমণ করে মন্তব্য করে। গত সপ্তাহে দিল্লির গার্গি কলেজে হামলা ও শিক্ষার্থীদের যৌন হয়রানির ঘটনা ঘটে।


জনপ্রিয় বিষয় সমূহ:

Right Menu Icon